আজ ১৯শে শ্রাবণ, ১৪২৮ বঙ্গাব্দ, ৩রা আগস্ট, ২০২১ খ্রিস্টাব্দ

ইকুয়েডরকে উড়িয়ে সেমিতে আর্জেন্টিনা

প্রতিনিধি এনামুল হক : লিওনেল মেসির নৈপুণ্যে দাপুটে জয়ে কোপা আমেরিকার শেষ চার নিশ্চিত করেছে আর্জেন্টিনা। আসরের শেষ সেমিফাইনালে লা আলবিসেলেস্তেরা ইকুয়েডরকে উড়িয়ে দিয়েছে ৩-০ গোলে।

প্রথম দুই গোলে অ্যাসিস্ট করার পাশাপাশি ফ্রি-কিক থেকে আর্জেন্টিনার তৃতীয় গোলটি করেন মেসি। এই নিয়ে কোপার এবারের আসরে চার গোল করার পাশাপাশি আরও চার গোলে অ্যাসিস্ট করলেন ৩৪ বছর বয়সী ফরোয়ার্ড।

বাংলাদেশ সময় রবিবার সকালে এস্তাদিও অলিম্পিকো লুদোভিকো স্টেডিয়ামে কিক-অফের দুই মিনিট পরেই শট নিয়ে ইকুয়েডর শিবিরে ত্রাস ছড়ান লাউতারো মার্তিনেস। কোচ স্কালোনির ৪-৩-৩ ফরম্যাট শুরু থেকে আক্রমণাত্মক ফুটবল উপহার দিতে থাকে। তার মধ্যে ইতিহাস পক্ষে ছিল আর্জেন্টিনার। কোপায় ইকুয়েডরের বিপক্ষে ১৫ সাক্ষাতে কখনো হারতে হয়নি আকাশী-নীলদের। ১০ জয়ের পাশাপাশি ছিল ৫ ড্র। এবার তা আরও একবার বাড়িয়ে নিল আর্জেন্টিনা।

১৪তম মিনিটে ফের গোলে সুযোগ নষ্ট পান মার্তিনেস। ১৬তম মিনিটে মেসির শটে আর্জেন্টিনার এক পেনাল্টির সম্ভাবনা বাতিল হয় ভিএআর চেকে। ৩৮তম মিনিটে ইকুয়েডরকে এগিয়ে দেওয়ার সুযোগ হাতছাড়া করেন তাদের অধিনায়ক ভ্যালেন্সিয়া।

এর দুই মিনিট পরেই এগিয়ে যায় আর্জেন্টিনা। মেসির পাস থেকে ইকুয়েডরের জাল খুঁজে নেন রদ্রিগো ডি পল। দেশের জার্সিতে ২৭তম ম্যাচে নিজের প্রথম গোল পেলেন এই উদিনেস মিডফিল্ডার। এই ব্যবধান ধরে রেখে প্রথমার্ধ শেষ করে স্কালোনির দল।

বিরতির পর সমতায় ফিরতে চেষ্টা করে ইকুয়েডর। তবে নিজেদের রক্ষণ সামলানোর পাশাপাশি বেশ কয়েকবার আক্রমণে উঠে আর্জেন্টিনা। ৭১তম মিনিটে গুইদো রদ্রিগেজ ও আনহেল দি মারিয়া মিলে দারুণ এক সুযোগ সৃষ্টি করেন।

৮৪তম মিনিটে ইকুয়েডরের রক্ষণভাগের ভুলে ব্যবধান দ্বিগুণ করে আর্জেন্টিনা। প্রতিপক্ষের গোলপোস্টের এক ডিফেন্ডারের কাছ থেকে ক্ষিপ্রতার সঙ্গে বল কেড়ে নেন দি মারিয়া। পিএসজি মিডফিল্ডার পাস দেন মেসিকে। আড়াআড়িভাবে আর্জেন্টাইন অধিনায়ক বল বাড়ান মার্তিনেসকে। দারুণ শটে বল জালে জড়িয়ে দেন ইন্টার মিলান স্ট্রাইকার।

এরপর যোগ করা তৃতীয় মিনিটে ফ্রি-কিক থেকে দলের তৃতীয় গোল করেন মেসি। বল নিয়ে দারুণ এক লম্বা দৌড় দিয়েছিলেন দি মারিয়া। তাকে আটকাতে গিয়ে ডি-বক্সে ফাউল করে বসেন ইকুয়েডরের পিয়েরো হিনক্যাপি। রেফারি ভিএআর চেকে পেনাল্টির বাঁশি বাজানোর পর লাল কার্ড দেখান তাকে। ডি-বক্স লাইন থেকে স্পট কিকে জাল খুঁজে নেন মেসি।

শেষ চারে কোচ লিওনেল স্কালোনির শিষ্যরা প্রতিপক্ষ হিসেবে পেয়েছে কলম্বিয়াকে। আসরের তৃতীয় সেমিফাইনালে উরুগুয়েকে টাইব্রেকারে ৪-২ ব্যবধানে হারিয়ে শেষ চার নিশ্চিত করে কলম্বিয়া। এর আগে নির্ধারিত সময় শেষে ম্যাচটি ড্র হয় গোলশূন্যভাবে।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

     More News Of This Category